May 12, 2019 Uncategorized

কন্টেন্টকে সঠিক গুরুত্ব দিচ্ছেন তো?

ইন্টারনেট এবং অনলাইন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম প্রথাগত যোগাযোগ ব্যবস্থায় যুগান্তকারী পরিবর্তন নিয়ে এসেছে। এখন বানিজ্যিক অথবা অবানিজ্যিক যে কোনো প্রতিষ্ঠানই নিজ ওয়েবসাইট ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে কন্টেন্ট শেয়ার করে পাঠক, অনুসারী এবং ভোক্তাদের সঙ্গে সরাসরি যোগাযোগ রক্ষা করে থাকে। যোগাযোগ ও ব্র্যান্ডিং এর জন্য ওয়েবসাইট ও সোশাল মিডিয়া পেইজগুলো প্রতিটি প্রতিষ্ঠানের কাছে এখন অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ মাধ্যম।

আপনার ওয়েবসাইট উপস্থাপন করছে আপনার প্রতিষ্ঠানকে আর এর কন্টেন্ট সামাজিক যোগাযোগ বলয়ে প্রবেশ করে আপনার প্রতিষ্ঠান পরিচিতি পাচ্ছে বিশ্ব অনলাইন জনগোষ্ঠীর কাছে। ২০১৫ সালের মার্চ মাসে শুধুমাত্র বাংলাদেশে ইন্টারনেট ব্যবহারকারীর সংখ্যা ছিলো ৪ কোটি ৪৬ লক্ষ ২৫ হাজার। দেশের অন্যতম জনপ্রিয় দৈনিক প্রথম আলো তাদের একটি রিপোর্টে বলেছে বাংলাদেশে মোট ১ কোটি ৮ লাখ ব্যবহারকারী ফেসবুকসহ অন্যান্য সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের সাথে যুক্ত। রিপোর্ট অনুযায়ী আমাদের দেশে প্রতি ৮ সেকেন্ডে ১ জন ফেসবুকে যুক্ত হচ্ছে।

এই বিশাল অনলাইন জনগোষ্ঠীর আপনিও একজন। সামাজিক মাধ্যমে একদিকে আপনি অন্যের পোস্টে লাইক দিচ্ছেন, কমেন্ট করছেন অথবা শেয়ার করছেন। অন্যরাও একইভাবে আপনার পোস্টে লাইক দিচ্ছেন, কমেন্ট করছেন অথবা শেয়ার করছেন। তাই বলে আপনি কি নিশ্চিত যে আপনার প্রতিটি পোস্টই সবার দৃষ্টি আকর্ষণ করছে? অন্যেরা বাহবা দেয় বা শেয়ার করে শুধুমাত্র তাদের কাছে যা ব্যাতিক্রমী মনে হয়। তাই অনলাইনে নিজ ব্র্যান্ডকে হাইলাইট করতে চাই তথ্যসমৃদ্ধ কন্টেন্টের ব্যাতিক্রমী উপস্থাপনা। অনলাইনে ব্র্যান্ড ও প্রতিষ্ঠানকে জনপ্রিয় করতে চাই অত্যন্ত আকর্ষনীয় কন্টেন্ট। আবার একঘেয়েমি এড়াতে কন্টেন্টের ধরনে পরিবর্তন আনা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ।

অতপরঃ চ্যালেঞ্জের নাম কন্টেন্ট। আপনার একটু ভুল বা এলোমেলো উপস্থাপনার ফলে অনুসারীরা আপনার সম্পর্কে নেতিবাচক মন্তব্য করতে পারে অথবা সর্বোপরি আপনার পেইজ অনুসরণ করা হতে বিরত থাকতে পারেন। আপনি নিশ্চয়ই কোনোভাবেই এই ঝুঁকি নেবেন না!

বিষয়টিকে গুরুত্ব দিয়েই দক্ষ কন্টেন্ট লেখকদের সমন্বয়ে আমরা WritersCafe গঠন করেছি। আপনার ডিজিটাল ও নন-ডিজিটাল প্ল্যাটফর্মের জন্য আমরা সুন্দর, গোছানো ও আকর্ষণীয় কন্টেন্ট প্রস্তুত করছি।

আমাদের সেবাগুলো সম্পর্কে আরো জনতে এখানে ক্লিক করুন

Share: